বিকাশ পিন ভুলে গেলে করনীয় কি ?বিকাশ পিন রিসেট করুন।

বিকাশ পিন ভুলে গেলে করনীয় কী:বন্ধুগণ ইন্টারনেট সবার আয়ত্বে আসার ফলে অনলাইনে শপিং থেকে টাকা লেনদেন,সব কিছুই এখন বাংলাদেশে মোবাইল ব্যাঙ্কিং রকেট বা বিকাশ দ্বারা সম্ভব হয়ে ওঠছে।কিন্তু অনেক সময় ইউসার রা এই একাউন্টের লগইন পিন ভুলে যান।তাই,আমরা আগেই জেনেছি রকেট পিন রিসেট করার নিয়ম,আর আজ জানবো কিভাবে বিকাশ পিন রিসেট করবেন বা বিকাশ পিন লক হলে করণীয় কি

বিকাশ পিন ভুলে গেলে করনীয়

আপনি যখন বিকাশ একাউন্ট ওপেন করেছিলেন তখন আপনার কাছে ৫ ডিজিটের পিন সেট করতে বলা হয়ে থাকে,এই পিন দ্বারা আপনি একাউন্ট কে access বা লগইন করতে পান।

আপনি যদি না জানেন বিকাশ মোবাইল ব্যাঙ্কিং কি ও কিভাবে এখানে একাউন্ট খুলতে হয়,তাহলে নিচে লিংক দেওয়া হলো –

তবে অনেক ইউসার নানান কারণে এই পিন ভুলে যান,তাছাড়া ৩ বারের বেশি ভুল পিন টাইপ করলে বিকাশ আপনার একাউন্ট কে ব্লক বা লক করে দেই,ফলে আপনি সেই একাউন্ট কে আর access করতে পারেন না। 

তাহলে,এখানে আপনাদের সবার প্রশ্ন –বিকাশ পিন ব্লক হলেবা লক হলে করণীয় কি ? কিভাবে পুনরাই সেই একাউন্ট access করতে পারবেন ?

চিন্তা করার দরকার নেই ,নিচে দেখানো আমার মেথড গুলি ঠিক ভাবে এপলাই করুন, 100% গ্যারান্টি আপনি পুনরাই সেই একাউন্ট access করতে পারবেন।

আরো পড়ুন –

জানুন বিকাশ পিন লক হলে করণীয় কি –

নিচে আমরা step-by-step পিন রিসেট করার পন্থা গুলি দেখে নেবো।আপনারা এই পন্থাগুলি এপ্লাই করার আগে ধৈর্য সহকারে পরে বুঝেনিন।

বিকাশ পিন রিকভার করার ২-৩ ভাবে করা যায়,আমি এই পোস্টে দুই ভাবে পিন রিসেট করার মাধ্যম নিয়ে আলোচনা করবো।বেশিরভাগ লোকে পিন পরিবর্তন করতে এই ২ মাধ্যম অবলম্বন করে।

  • প্রথম মাধ্যম হচ্ছে বিকাশ ওয়েবসাইটে লাইভ চ্যাট দ্বারা পিন রিসেট করা। 
  • দ্বিতীয় রাস্তা হচ্ছে বিকাশ হেল্পলাইন নাম্বারে কল করে পিন রিকভার করা।
বিকাশ পিন রিসেট

আমার ধাপে ধাপে ২ মাধ্যম দ্বারা পিন রিকভার করা দেখবো –

বিকাশ ওয়েবসাইটে লাইভ চ্যাট দ্বারা পিন রিকভার প্রকিয়া –

লাইভ চ্যাট দ্বারা পিন রিকভার করতে হলে আপনার একটি এন্ড্রোইড ফোন থাকা দরকার।এবার আপনি মোবাইল এর ব্রাউজার ওপেন করে টাইপ করুন bikash live chat. তারপর গুগলের প্রথম সার্চ রেসাল্ট টি ওপেন করুন। (অথবা এই লিংকে ক্লিক করুন – bikash live chat)

এবার আপনি বিকাশের অফিসিয়াল পেজে প্রবেশ করে যাবেন ।Next কাস্টমার কেয়ার Support এর সঙ্গে লাইভ চ্যাট করার জন্য “Click here to start chatting” ক্লিক করুন।

এবার দেখবেন একটি চ্যাট বাক্স ওপেন হবে,সেখানে আপনাকে wait করতে হবে যতক্ষণ আপনার serial নম্বর না আসবে। ১-২ মিনিট wait করার পর আপনার নম্বর এলে কাস্টমার কেয়ার Support একটি welcome ম্যাসেজ দ্বারা আপনাকে জানাবে। 

এবার আপনি আপনার সমস্যার কথা টাইপ করে জানান। যথা – আমি বিকাশ পিন ভুলে গিয়েছি সেটা পুনরাই ফিরে পেতে চাই,দয়া করে সেটা রিকভার করে দিন (এর পর নিজের মোবাইল নম্বর টি দিন ) এবার এই ম্যাসাজ টি লিখে সেন্ড করুন।

এর পর কাস্টমার সাপোর্ট আপনার কাছ থেকে ভেরিফাই করার জন্য নানান প্রশ্ন ও তথ্য জানার চেষ্টা করবে।তাই জিনার একাউন্ট তার পপ্রেসেন্ট থাকা বাধতামুলুক।

এখানে আপনার

  • NID কার্ডের নম্বর বা পরিচয়পত্র এর ডিটেলস।
  • আপনার পুরো নাম। 
  • বর্তমান বিকাশ ব্যালেন্স কত। 
  • লাস্ট কত টাকা রিচার্জ করেছেন।

এই সমস্ত তথ্য দিয়ে আপনার বিকাশ একাউন্ট যাচাই করবে।তারপর ac ভেরিফাই হলে একটি ম্যাসেজ দিবে যেখানে লেখা থাকবে – আপনার অনুরোধ টি রাখা হয়েছে ১৫ মিনিটের মধ্যে আপনার বিকাশ হেল্পলাইন থেকে কল আসবে ইত্যাদি ইত্যাদি ।

এবার ১৫ মিনিট wait করুন,বিকাশ হেল্পলাইন থেকে কল এলে সেই কাস্টমার সাপোর্ট আপনার নাম বাবার নাম ইত্যাদি তথ্য জানবে।আপনি NID কার্ডে যা আছে সেটাই বলবেন।

তারপর কল end হলে আপনার নাম্বারে একটি SMS আসবে যেখানে একটি টেম্পরারি লগইন পিন দেওয়া থাকবে যেটা ১ ঘন্টা ভ্যালিড থাকবে তারমধ্যে আপনাকে পিন চেঞ্জ করে নিতে হবে।

এবার জানুন কিভাবে টেম্পরারি পিন চেঞ্জ করবেন  – আপনার বিকাশ নম্বর থেকে *247# ডাইল করুন।

 এরপর My bKash থেকে 1 type করে send করুন, পরবর্তী স্টেপ change mobile menu pin এখানে ও 1 লিখে send করুন।এবার এখানে টেম্পরারি চাইবে – বিকাশ থেকে sms দ্বারা যে টেম্পরারি লগইন পিন টা দিয়েছে সেটা দিয়ে দিন।

এবার নিউ পিন সেট করার অপসন পাবেন এখানে নিজের পছন্দ মতো ৫ ডিজিটের পিন দিয়ে সেট করুন,কনফার্ম করার জন্য পুনারই পিন টাইপ করে ok করুন। congratulation আপনার বিকাশ পিন/পাসওয়ার্ড পুরোপুরি পরিবর্তন হয়েগেছে।

সবশেষে,আপনি এই নতুন পিন দিয়ে বিকাশ একাউন্ট লগইন হচ্ছে কিনা সেটা দেখেনিন। 

বিকাশ হেল্পলাইন নাম্বারে কল করে পিন রিকভার

ফ্রেন্ডস,আপনার  যদি মনে হয় উপরের মাধ্যমটি খুবি জটিলতাহলে চিন্তা নেই। আপনি ডাইরেক্ট বিকাশ হেল্পলাইন নম্বর 16247 নাম্বারে কল করে পিন রিসেট করে নিতে পারবেন।

এর জন্য আপনি যে নাম্বারে বিকাশ একাউন্ট ওপেন করেছেন সেই মোবাইল থেকে 16247 টাইপ করে call করুন।

call করার পর wait করুন তারপর বিকাশ প্রতিনিধির সঙ্গে কথা বলতে ১ ও তার পর 0 প্রেস করে অপেক্ষা করুন (নম্বর চেঞ্জ হয়েগেলে দেখে নিবেন)। 

এরপর কাস্টমার সাপোর্ট কে আপনার সমস্যার কথা টি বলুন। কাস্টমার সাপোর্ট  NID কার্ডের নম্বর চাইবে ও আরো নানান তথ্য যেগুলো আমি উপরে বলছি সেই তথ্য গুলি জানার পর যাচাই করবে। 

ভেরিফাই সম্পর্ণ হলে,আপনার নম্বরে একটি sms আসবে সেটিতে একটি টেম্পরারি লগইন পিন দেওয়া থাকবে যেটা ১ ঘন্টা ভ্যালিড থাকবে তারমধ্যে আপনাকে পিন চেঞ্জ করে নিতে হবে।

এবার কিভাবে টেম্পরারি পিন চেঞ্জ করবেন সেট উপরে জেনেছি, এখানেও একই প্রসেস ফলো করুন। 

আমাদের শেষ কথা 

ফ্রেন্ডস, আমরা উপরে দেখলাম বিকাশ পিন ভুলে গেলে করনীয় কি? যথা কিভাবে বিকাশ পিন রিসেট বা রিকভার করবেন। ফ্রেন্ডস একটি গুরুত্বপূর্ণ কথা মনে রাখবেন, পিন রিসেট করার জন্য কোনরকম duplicity বা ছলনা করলে আপনার বিকাশ একাউন্ট চিরতরে ব্লক করে দিতে পারে। 

সর্বশেষ ,আর একটি কথা জেনে রাখুন, বিকাশ  কর্তৃপক্ষ কখনো আপনার পাসওয়ার্ড,পিন বা অ্যাকাউন্ট নম্বর জানার জন্য ফোন করবে না। আর আপনি কারও সঙ্গে এই গুরুত্বপূর্ণ তথ্য কখনও শেয়ার করবেন না। ধন্যবাদ 

আরো পড়ুন –

Subscribe
Notify of
guest
0 Comments
Inline Feedbacks
View all comments
0
Would love your thoughts, please comment.x
()
x
Share via
Copy link