কীভাবে গুগল ম্যাপ এর ব্যবহার করবেন?

গুগল ম্যাপ এর ব্যবহার:- ফ্রেন্ডস,বর্তমানে সবার কাছেই এন্ড্রোইড ফোন রয়েছে,আর এই ফোনের মাধম্যে প্রায় সবাই গুগলের নানান সার্ভিস ব্যবহার করে,তারমধ্যে google maps একটি গুরুত্বপূর্ণ সার্ভিস।এর সাহায্যে আমরা যেকোন দুটি অবস্থানের মধ্যে দূরত্ব পরিমাপ ও অন্যান্য তথ্য জানতে পারি।তাই এই আর্টিকেলে কিভাবে Maps ব্যবহার করবেন তার সম্পর্কে আলোচনা করবো।

গুগল ম্যাপ এর ব্যবহার

গুগল ম্যাপস হচ্ছে বর্তমানে বহুল ব্যবহৃত পরিষেবার মধ্যে একটি।ম্যাপস হচ্ছে একটি চমত্কার বহুমুখী টুল যেটি ব্যবহার করা খুবি সোজা।একটি সাধারণ পথচারী থেকে শুরু করে ড্রাইভার,বাইকার,গণপরিবহন আরও অন্যান্য ব্যবহারকারীদের বিভিন্ন উপায়ে সহায়তা করেথাকে।

বর্তমানে আমরা চলারপথে সর্বক্ষেত্রে গুগল ম্যাপস এর সাহায্য নিয়েথাকি,ফলে এই সার্ভিস ছাড়া আজকের দিনে পথচলা কল্পনা করাও কঠিন।তাই,বন্ধুরা আপনারা কি জানেন কিভাবে গুগল ম্যাপস করতে হয়? যদি না জানা থাকে তাহলে চিন্তা নেই।ম্যাপ এর ব্যবহার সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করতে যাচ্ছি –

কীভাবে গুগল ম্যাপ এর ব্যবহার করবেন সে সম্পর্কে এখানে ধাপে ধাপে নির্দেশাবলী দেওয়া হল:-

গুগল ম্যাপস আপনি বিভিন্ন ভাবে ব্যবহার করতে পারেবন।কম্পিউটার,মোবাইল,ট্যাবলেট থেকে গুগল ক্রোম ওপেন করে google maps সার্চ করে এক্সপ্লোর করতে পারেন।

এছাড়া আপনি এন্ড্রোইড ফোন ব্যবহার করলে তারমধ্যে গুগল ম্যাপস প্রিইন্সটল হয়েআসে।তাছাড়া,এন্ড্রোইড ফোনে প্লেস্টোর ও অপালের অ্যাপস্টোরে google maps এর অফসিয়াল ভার্সন পেয়ে যাবেন।

নিচে google maps ব্যবহারের গাইড সম্পর্কে আলোচনা করা হলো –

ম্যাপস ডাউনলোড করার পর সেটি ইউজ করার আগে নিম্নলিখিতটি প্রক্রিয়া টি ফলো করুন :-

  • নিজের মোবাইলের GPS টার্ন অন করুন।
  • গুগল ম্যাপস এর app কে আপনার বর্তমান অবস্থান এবং অডিও স্পিকার অ্যাক্সেস দিন।

ফ্রেন্ডস,এই পোস্টে আমরা গুগল ম্যাপ app এর মধ্যে কিভাবে use করে সেটি জেনেনেব-

Step 1: সর্ব প্রথম নিজের মোবাইলে app ওপেন করুন।

Step 2:এবার আপনি বাড়ি এবং অফিসের ঠিকানা সেট করুন।সেটি কিভাবে করবেন তার প্রসেস নিচে দেখুন।

app এর মধ্যে হোমস্ক্রিনে পৃথিবীর ম্যাপ দেখতে পাবেন।নিচে কয়েকটি অপসন আছে ওখানে “Saved” অপসন ওপেন করুন।

নেক্সট এখানে “Labelled“অপশন ওপেন করুন।

লেবেলেড সেকশন দুটি অপসন পাবেন “Home” ও “Work”. এবার হোম অপশনে নিজের বাড়ীর ঠিকনা অ্যাড করুন।

সেট হোম এড্রেসে নিজের বাড়ীর লোকেশন সিলেক্ট করুন। সার্চ বক্সে আপনি যে ঠিকানায় বসবাস করেন সেটি লিখুন যেমন -কোলকাতা। তারপর রেজাল্ট থেকে সেই ঠিকনা সিলেক্ট করুন।

এবার ম্যাপ আপনার ঠিকানায় ওপেন হবে।সেখানে আপনি ম্যাপ এর পয়েন্টার পয়েন্ট করে ঠিকনা সেটকরেনিন।তারপর save করুন।

Step 3:- ফ্রেন্ডস,আপনার বাড়ির ঠিকনা সেট হয়েগেলে এবার কিভাবে নিজের এড্রেস থেকে কোনো জায়গার দূরত্ব বা স্থান খুজে বেরকরা বা দিকনির্দেশ কিভাবে পাবেন সেটি জেনেনিন।

পড়ুন- সেরা মোবাইল গেম ডাউনলোড করার ওয়েবসাইট।

কোনও জায়গার সম্পর্কে তথ্য জানা :-

গুগল ম্যাপস এর “Explore“অপশনে চলে আসুন,উপরে সার্চ অপসন পাবেন সেখানে আপনি যে স্থান সম্পর্কে জানতে চান তার নামটি লিখুন।

এবার স্ক্রিনে সেই স্থান বা জায়গার ম্যাপ দেখতে পাবেন।এখানে আপনি এই ম্যাপের সাহায্যে সেই জায়গার বিভিন্ন তথ্য জানতে পারবেন।

যেমন- ব্যবসা খোলা ও বন্ধ থাকার সময়সূচি ও মেনু সম্পর্কে তথ্য পান এবং ‘রাস্তার দৃশ্য’-এর ছবি আরও অনেক কিছু।

এবার আপনি সেই স্থান থেকে নিজের বাড়ির দূরত্ব কিভাবে জানবেন সেটি পরের স্টেপে জানবো।

পড়ুন-

দিকনির্দেশ ও রুট দেখুন।

Google map এর মধ্যে আপনি যেকোনো রোডের পথনির্দেশ পাবেন।এছাড়া আপনি যদি ড্রাইভ করেন,বা কোনো পাবলিক ট্রান্সপোর্ট ব্যাবহার করেন এছাড়া সাইকেল,বাইক,হাঁটা মাধ্যমে কোনো একটি স্থান থেকে ওপর স্থানের দূরত্ব জানতে চান তাহলে সেটি খুব সহজ প্রসেস।

ধরুন আপনি নিজের বাড়ি থেকে কোনো একটি স্থানের দূরত্ব জানতে চান, এখানে উদহারণ সরূপ কলকাতা কে নিলাম।ফার্স্ট আপনি explore থেকে search করুন Kolkata।

স্ক্রিনে কোলকাতার ম্যাপ ওপেন হলে নিচে নীল কালারে ”Directions” এর মধ্যে ক্লিক করুন।

নেক্সট অপশনে ওপর স্থান মানে আপনার গন্তব্য চুষ করতে হবে।এখানে আপনি যে গন্তব্য সিলেক্ট করবেন সেটি থেকে কলকাতার দিকনির্দেশ ও রুট পেয়ে যাবেন।

(এখানে আমরা কোলকাতাকে উদহারণসরূপ নিয়েছি,গুগল ম্যাপসে পৃথিবীর যেকোনো স্থান থেকে ওপর স্থানের রুট ও দূরত্ব দেখা যাই,অবশই যদি রুট থাকে)

একটু উদাহারণ দিয়ে বুঝার চেষ্টা করি- ধরুন কোলকাতা থেকে নিজের বাড়ীর দূরত্ব জানতে চাইছেন,তাহলে এখানে Home সিলেক্ট করুন,ম্যাপ কোলকাতা থেকে আপনার বাড়ীর দূরত্ব ও কি কি রুট দিয়ে সেই গন্তব্য যাওয়া যাবে সেগুলি দেখিয়েদেবে।

আর যদি কোলকাতা থেকে অন্য স্থানের দূরত্ব জানতে চান তাহলে সার্চে অপশনে সেই স্থানের নাম লিখুন।

এর পর গুগল ম্যাপস আপনাকে সেই দুটি স্থানের মধ্যে দূরত্ব ও রুট দেখিয়ে দেবে।

ছবিতে দেখুন আমি কোলকাতা থেকে মেদিনীপুরে দূরত্ব জানতে চেয়েছি,এখানে ম্যাপস তার রেজাল্ট দেকিয়েছে। কোলকাতা থেকে মেদিনীপুরে দূরত্ব ১২৮KM আর সম্ভব সময় লাগবে গাড়িতে ৩ ঘন্টা।

অবশ্য আপনি এই ম্যাপ এরমধ্যে bike,ট্রেন,walk সবধরণের দূরত্ব,রুট সময় দেখতে পাবেন।

এই রেজাল্টর মধ্যে আপনি প্রত্যেক স্টেপর প্রিভিউ পাবেন যারফলে আপনি যে গন্তব্য যেতে চাইছেন সেই রুটের রোড ম্যাপ না জানা থাকলেও ম্যাপ এর সাহায্য নিয়ে খুব সহজে পোঁছে যেতে পারবেন।

শুধু তাই না এখানে ট্রাফিক জ্যাম,রোড জ্যাম,বিকল্প রোড অপসন আরও নানান সুবিধে এই গুগল ম্যাপ এর মধ্যে পাবেন।

আরো পড়ুন –

আমাদের শেষ কথা-

তাহলে বন্ধুরা, আপনার গুগল ম্যাপস এর বেসিক ফাংশন আপনাদের বুঝতে আর অসুবিধে নেই।বর্তনামে সবার হাতে মোবাইল আসার ফলে গুগল ম্যাপ এর app use করে জানা -অজানা যেকোনো প্রান্তে গমন করতে পারেন।

এই ম্যাপ app এরমধ্যে কোনও জায়গা সম্পর্কে তথ্য বা দিকনির্দেশ,নেভিগেশন ছাড়া ও আরো অনেক কিছু সুবিধে পান।যেমন – ম্যাপ এক্সপ্লোর করুন এছাড়া ট্রাফিক, ট্রানজিট, বাইক চালানো, ভূদৃশ্য এবং আপডেট পাবেন।

3D-তে সারা পৃথিবী দেখুন,যেকোনো রাস্তার দৃশ্য বা ছবি,আপনার বর্তমান লোকেশন জানুন,কোনো জায়গার রেটিং দিন ও পর্যালোচনা করুন দেখুন, এছাড়া  ব্যবসা খোলা ও বন্ধ থাকার সময়সূচি ও মেনু সম্পর্কে তথ্য পান।

ফ্রেন্ডস গুগল ম্যাপসের মধ্যে অসংখ features রয়েছে যেগুলো আপনার দৈনিন্দ জীবনে ও চলাফেরা করতে সাহয্য করবে।

আপনার যদি এই feature গুলি সম্পর্কে আরও বিস্তারিত জানতে চান তাহলে অবশ্যই কমেন্ট করে জানান।যাইহোক আশাকরি গুগল ম্যাপ এর ব্যবহার সম্পর্কে ধারণা এসেছে।

Share via
Copy link